আইপিএলের পর দ্বিতীয় সেরা ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্ট হতে যাচ্ছে মরুর বুকে!

0
7

স্পোর্টস ডেস্কঃ বিশ্বজুড়ে চলছে ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টের দৌলত। সময়ের সাথে পাল্লা দিয়ে বেড়ে উঠছে নতুন নতুন টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট। আর এরই ধারাবাহিকতায় এবার নতুন টি-টোয়েন্টি লিগ শুরু করতে যাচ্ছে সংযুক্ত আরব আমিরাত।

আমিরাত ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি) আনুষ্ঠানিকভাবে নিশ্চিত করেছে এই লিগের কথা। যার নাম হবে ইন্ট্যারন্যাশনাল টি-টোয়েন্টি লিগ (আইএল টি-টোয়েন্টি)। শুধুমাত্র করার জন্যই এই আয়োজন না। রীতিমতো টাকার ঝুলি নিয়ে হাজির হচ্ছে টুর্নামেন্টটি। ইতিমধ্যেই ঘোষণা করা হয়েছে টুর্নামেন্টের দিনক্ষণ।

২০২৩ সালে থেকে এই টুর্নামেন্টের পর্দা উঠবে। ৬ জানুয়ারি থেকে ১২ ফেব্রুয়ারির মধ্যে আয়োজন করা হবে আসর। আরব আমিরাতের তিন ভেন্যুতে টুর্নামেন্টটি পরিচালনা করা হবে। আর সেগুলো হলো দুবাই, আবু ধাবি ও শারজাহ। ৬ দলের  টুর্নামেন্ট আয়োজিত হবে। সব মিলিয়ে আয়োজিত হবে ৩৪ ম্যাচ।

নির্ধারিত হয়ে গেছে টুর্নামেন্টে ৬ দলের ফ্র্যাঞ্চাইজির মালিকানা। যাদের বেশিরভাগই ভারতীয় মালিকাধীন দল। এই টুর্নামেন্টে দল কিনেছেন শাহরুখ খানের নাইট রাইডার্স গ্রুপ, মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের কর্ণধার মুকেশ আম্বানির রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ কোম্পানি, গৌতম আদানির প্রতিষ্ঠান আদানি গ্রুপ, দিল্লি ক্যাপিটালসের অন্যতম মালিক কিরণ কুমারের জিএমআর গ্রুপ, ক্যাপ্রি গ্লোবালের রাজেশ শর্মা ও ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের মালিক গ্লেজার ফ্যামিলি।

বিশ্ব ক্রিকেটের নামি দামি সব ক্রিকেটারকে এই টুর্নামেন্টে দেখা যাবে বলে ধারণা। কেননা টাকার অঙ্ক সেই কথাই বলছে। ২ মিলিয়ন (২০ লাখ) মার্কিন ডলার দিয়ে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো দল সাজাতে পারবেন। খেলোয়াড়দের পারিশ্রমিকেই শুধু সীমাবদ্ধ থাকবে এই অর্থ। ক্রিকেটারদের এমনভাবে দলে ভেড়ানোর অর্থ আরব আমিরাতের এই লিগের বাইরে সর্বোচ্চ দেওয়া হয়ে থাকে শুধুমাত্র ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল)।

আর তাই স্বাভাবিকভাবেই বিশ্বের অন্যান্য ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টকে পেছনে ফেলে দুই নম্বরে জায়গা করে নিতে যাচ্ছে আইএল টি-টোয়েন্টি, এমনটাই ধারণা সবার। মাঠের খেলায় এখন কী করে এই টুর্নামেন্ট, সেটা দেখার অপেক্ষায় সবাই। তবে বিশ্ব ক্রিকেটে এর প্রভাবে পড়বে, সেটি বলা যায় নিঃসন্দেহে।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/ডেস্ক/সা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here