তৃতীয় বিভাগ ফুটবলে নিজ দলের হয়ে মাঠে ক্রীড়া উপ-মন্ত্রী

স্পোর্টস ডেস্ক:: আরিফ খান। দেশের উপ-ক্রীড়া মন্ত্রী। সাবেক ফুটবলার। ফুটবলের সঙ্গেই তার সখ্যতা। এর আগেও অনেক মন্ত্রী হয়ে মাঠে গেছেন। ডাগ আউটে দাঁড়িয়েছেন। কখনো মাঠে নেমে ফুটবল নিয়ে উৎসবে মেতেছেন।

এবারো তিনি মাঠে। তবে এবার আলোচনায় এলেন ভিন্ন ভাবে। বাফুফের তৃতীয় বিভাগ ফুটবল লীগে মাঠে গিয়ে নিজ দলের হয়ে প্রভাব বিস্তার করেছেন। রেফারিদের গালি দিয়েছেন এমন অভিযোগ উঠেছে ক্রীড়া উপ-মন্ত্রীর বিরুদ্ধে।

তৃতীয় বিভাগে খেলা আরামবাগ একাডেমি ফুটবল দল এমন অভিযোগ করেছে এই উপ-মন্ত্রীর বিরুদ্ধে।  কমলাপুর স্টেডিয়ামে খেলা চলছিল আরামবাগ একাডেমি ও দীপালি যুব সংঘের।  ম্যাচটি চলাকালে মাঠে যান যুব ও ক্রীড়া উপ-মন্ত্রী আরিফ খান জয়। শুধু মন্ত্রী হয়ে গেলেই সমস্যা ছিলো না। তাঁর সঙ্গে যে আরেকটি পরিচয়। তিনি দীপালি ক্লাবের সভাপতি।

আরামবাগ একাডেমি ক্লাবটির সভাপতি মোমিনুল অভিযোগ করে সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘তিনি (আরিফ খান জয়) ওখানে যেতেই পারেন না। কারণ, অনুমতি নেই। তা ছাড়া মন্ত্রী রেফারিকে গালাগাল করেন আমাদের কার্ড দিতে। এর চেয়ে লজ্জার, ন্যক্কারজনক কী হতে পারে! একজন মন্ত্রী যদি মাঠে গিয়ে কোচিং করান, মাঠের এপাশ থেকে ওপাশে হাঁটা শুরু করেন, কীভাবে চলবে। ফুটবল তো এভাবে ধ্বংস হয়ে যাবে।’

উপ-মন্ত্রী আরিফ খান জয়ের ছোট ভাই ও  দীপালি যুব সংঘের সাংগঠনিক সম্পাদক অমিত খান অবশ্য এতে খারাপ কিছু দেখছেন না। তিনি একটি দৈনিককে বলেন, ‘অভিযোগ যে কেউ করতেই পারেন। রাজনৈতিক কিছু ব্যাপার থাকে এর মধ্যে। দীপালি ক্লাবের পাশে যখন কেউ ছিল না, খেলোয়াড়-কোচ এনে ক্লাবটাকে এগিয়ে নিয়েছেন জয় ভাই। তাঁর মাঠে গিয়ে খেলা দেখা তো প্রশংসা করার মতো ব্যাপার।’

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/ডেস্ক/প্রআ/০০