বিশ্বকাপে অতিরিক্ত ৭ ক্রিকেটার রাখতে পারবে দলগুলো

স্পোর্টস ডেস্কঃ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপকে সামনে রেখে নতুন সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইন্ট্যারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। করোনাভাইরাসের প্রকোপের কারণে ভারতে অনুষ্ঠিত আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অতিরিক্ত ৭ ক্রিকেটার অথবা সাপোর্ট স্টাফ নিতে পারবে দলগুলো। গতকাল বৃহস্পতিবার আইসিসির এক সভায় বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছে।

সবকিছু ঠিক থাকলে চলতি বছরের শেষ দিকে আয়োজিত হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। ভারতে বসতে যাচ্ছে সীমিত ওভারের ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় মহাযজ্ঞ। সেই বিশ্বকাপকে সামনে রেখে চলছে প্রস্তুতি। করোনাকে সামনে রেখে তাই নতুন সিদ্ধান্ত নিয়েছে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

এই বিশ্বকাপে অতিরিক্ত ৭ ক্রিকেটার বা সাপোর্ট স্টাফকে দলে রাখা যাবে। এর আগে ক্রিকেটার এবং সাপোর্ট স্টাফ মিলিয়ে প্রতিটি দলের সদস্য সংখ্যা বেঁধে দেওয়া ছিল ২৩ সদস্যের। এর মধ্যে ১৫ জন ক্রিকেটার এবং বাকি ৮ জন সাপোর্ট স্টাফ। এখন সব মিলিয়ে স্কোয়াডের সদস্য সংখ্যাটা দাঁড়িয়েছে ৩০’এ। আগের ২৩’এর থেকে অতিরিক্ত ৭ জনকে রাখা যাবে।

করোনাকে বিবেচনায় রেখেই দ্রুতই যদি ক্রিকেটার পরিবর্তন করতে হয় তাহলে সেটি যেন করা যায় এমন ব্যবস্থাই রাখা হয়েছে। অতিরিক্ত ক্রিকেটার যেন দলগুলো হাতের কাছেই পেয়ে যেতে পারে সেজন্যই এমন দিয়েছে আইসিসি। তবে এই ৩০ সদস্যের দলে ক্রিকেটার এবং সাপোর্ট স্টাফ যেকোনো দিক দিয়েই সদস্য বাড়াতে পারবে দলগুলো। তবে বাড়াতেই যে হবে সেটির কোনো বাধ্যবাধকতা নেই। আবার যে দল চাইলেই ক্রিকেটার এবং সাপোর্ট স্টাফের সামঞ্জ্যসতা রেখে বাড়াতে পারে। কিন্তু ক্রিকেটার এবং সাপোর্ট স্টাফ মিলিয়ে ৩০ সদস্যের বেশি স্কোয়াড চলবে না।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/ডেস্ক/সা