মাঠে খেলবে বাংলাদেশ, টিকিটের অর্থ যাবে বন্যার্তের সহায়তায়

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বন্যায় বিধ্বস্ত সিলেট ও সুনামগঞ্জ জেলা। এই অঞ্চলে বন্যার প্রাদুর্ভাবে বিপর্যস্ত জনজীবন। এই দুই জেলায় স্মরণকালের ভয়াবহ বন্যা দেখা দিয়েছে। লাখ লাখ মানুষ পানিবন্দী অবস্থায় আছে। আর সেই সকল মানুষের দিকে সরকারী ও বেসরকারী উদ্যোগে সহায়তার হাত বাড়ছে।

এগিয়ে এসেছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনও (বাফুফে)। বানভাসী মানুষের পাশে দাঁড়াতে এক ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়েছে বাফুফে। ২৩ ও ২৬ জুন আয়োজিত হবে বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়া নারী দলের মধ্যকার ফিফা টায়ার-১’র আন্তর্জাতিক দুটি ম্যাচ। দুটি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে কমলাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে।

আজ ২৩ জুন, বুধবার প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হবে দুই দল। সন্ধ্যা ৬টায় শুরু হবে কমলাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে। যদিও ম্যাচ দুটি অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে। তবে সিলেটের ভয়াবহ বন্যার কারণে সেটি আর সম্ভব হচ্ছে না। যার কারণে ঢাকায় স্থানান্তর করা হয়েছে ম্যাচগুলো। তবে যে বন্যার জন্য ম্যাচ সরেছে, সেই বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত মানুষদের সহায়তা করবে বাফুফে।

দুটি ম্যাচ থেকে ওঠে আসা টিকিটের অর্থ বানভাসীদের সহায়তায় কাজে লাগাবে বাফুফে। ম্যাচ পূর্ববর্তী সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বাফুফে নারী কমিটির চেয়ারম্যান মাহফুজা আক্তার কিরণ। তিনি সাবিনাদের ম্যাচ দেখতে দর্শকদের মাঠে আসার আহ্বান জানিয়েছেন।

মাহফুজা আক্তার বলেন, ‘আমাদের এই ম্যাচ দুটি সিলেটে হওয়ার কথা ছিল। তবে প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের কারণে আমরা ভেন্যু পরিবর্তন করতে বাধ্য হয়েছি। ঢাকায় এই দুই ম্যাচের যত টিকিট বিক্রি হবে, সেখান থেকে পাওয়া পুরো টাকা বন্যা দুর্গতদের ত্রাণের জন্য দিয়ে দেব। আমরা বন্যাদুর্গতদের সাহায্য করতে চাই। এজন্য দর্শকদের বলব, আপনারা এই ম্যাচের জন্য বেশি করে টিকিট কিনুন, মাঠে এসে মেয়েদের খেলা দেখুন।’

টিকিটের মূল্য ধরা হয়েছে ৫০ টাকা করে। প্রাথমিকভাবে ১০ হাজার টিকিট ছাপানো হয়েছে। যদি চাপ বাড়ে, তাহলে সেই টিকিটের সংখ্যা বাড়বে। কমলাপুরের স্টেডিয়ামের বুথ থেকে এবং বাফুফে ভবন থেকে কেনা যাবে টিকিট। এছাড়া মাইকিং করেও ভাসমানভাবে টিকিট বিক্রির ব্যবস্থা করবে বাফুফে।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/সা