মুস্তাফিজ কী বল করবেন, তা আগে থেকেই ব্যাটসম্যানরা জানত- তিওয়ারি

0
108

স্পোর্টস ডেস্কঃ মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিপক্ষে আইপিএলে প্রথমবার মাঠে নামেন বাংলাদেশের মুস্তাফিজুর রহমান। তবে নিজের শুরুর ম্যাচে এক উইকেট পেলেও খরুচে বোলিং করেন বাঁহাতি এই পেসার। তার দল দিল্লি ক্যাপিটালসও হারের বৃত্ত থেকে বের হতে পারে নি। টানা চার হারে পয়েন্ট টেবিলের তলানীতে ডেভিড ওয়ার্নারের দল।

১৭তম ওভারের শুরুতেই ৪ হজম করলেও পরের দুটি বলই ডট দেন মুস্তাফিজ। তৃতীয় বলে রোহিতের উইকেট তুলে নেন তিনি। মুম্বাই অধিনায়ক ৪৫ বলে ৬ চার ও ৪ ছয়ে ৬৫ রান করেন। পরের ওভারে এনরিচ নর্কিয়া ৬ রান খরচ করেন। কিন্তু মুস্তাফিজ ১৯তম ওভারে ১৫ রান খরচ করলে ম্যাচে ফিরে মুম্বাই। সেই ওভারে ২ ছক্কা হজম করেন ‘কাটার মাস্টার’।

কেন নিজের শেষ ওভারে ২ ছক্কা হজম করলেন মুস্তাফিজ? এ ব্যাপারে ভারতের সাবেক ক্রিকেটার মনোজ তিওয়ারি বলছেন, বাঁহাতি এই পেসার কী বল করবেন, তা আগে থেকেই ব্যাটসম্যানরা বুঝে গিয়েছিলেন। তিওয়ারি বলেন, ‘আপনার কাছে যখন কাটার থাকবে, তখন বলটাকে জায়গায়ও ফেলতে হবে। আগে থেকেই ব্যাটসম্যান প্রস্তুত ছিল।’

তিওয়ারি আরো বলেন, ‘মুস্তাফিজ ছক্কা হজমের বলে লেংথ পরিবর্তন করতে পারত। বল আরেকটু সামনে কিংবা ওয়াইড করতে পারত। একজন ব্যাটসম্যান যদি আগে থেকেই জানে বোলার কী বল করবে, তখন ব্যাটসম্যানদের জন্য কাজটা সহজ হয়ে যায়।’

শেষ ওভারে মুম্বাইয়ের জয়ের জন্য দরকার ছিল ৫ রান। দক্ষিণ আফ্রিকান পেসার আনরিখ নরকিয়ার প্রথম বলে ১ রান নেন ক্যামেরন গ্রিন। পরের বলে টিম ডেভিডের সহজ ক্যাচ ফেলেন মুকেশ কুমার। তৃতীয় বলে রান নিতে পারেন নি ডেভিড। চতুর্থ বলে ১ রান নেন অস্ট্রেলিয়ার হয়ে গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলা এই ব্যাটার।

শেষ বলে ২ রান দরকার ছিল রোহিতের দলের। গ্রিন আলতো করে ড্রাইভ খেলেই রানের জন্য ছোটেন। দুই রান নিতে যাওয়া এই ব্যাটারকে রান আউট করা যেত। কিন্তু সেটি আর হয় নি। ডেভিড ১৩ ও গ্রিন ১৭ রানে অপরাজিত ছিলেন।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/১১০

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here