যে রেকর্ডে অস্ট্রেলিয়া, বাংলাদেশ ও সাউথ আফ্রিকার এক, শ্রীলঙ্কার দুই

নিজস্ব প্রতিবেদক:: বিশ্ব ক্রিকেটে এক সময় বোলারদের বেশ দাপট ছিলো। ব্যাটিং বান্ধব উইকেট আর ব্যাটসম্যানদের অগ্নিমূর্তির কারণে এখন বোলাররা অনেকটা অসহায়। প্রত্যেক বোলারেরই স্বপ্ন থাকে হ্যাটট্রিক করা। অনেকেই সফল হয়েছেন এই স্বপ্ন পূরণে।

কিন্তুু বিশ্ব ক্রিকেটে অভিষেক ম্যাচে হ্যাটট্রিক করতে পেরেছেন মাত্র পাঁচজন বোলার। অভিষেক হ্যাটট্রিকের এই তালিকায় অস্ট্রেলিয়া, শ্রীলঙ্কা ও সাউথ আফ্রিকার ক্রিকেটারদের সঙ্গে আছেন একজন বাংলাদেশী ক্রিকেটারও।

শ্রীলঙ্কার দু’জন, অস্ট্রেলিয়ার একজন, সাউথ আফ্রিকার একজন ও বাংলাদেশের একজন বোলার অভিষেক ম্যাচেই করেছেন হ্যাটট্রিক। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিজেদের পথচলাটা তারা শুরু করেন রঙিন আলোয়, দুর্দান্ত ফর্মে।

বাংলাদেশ: টাইগার ক্রিকেটের স্পিনার তাজুল ইসলাম অভিষেকে হ্যাটট্রিক করেন। এক দিবসীয় ক্রিকেটের অভিষেক ম্যাচে ২০১৪ সালে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেন তাইজুল। একে একে শিকারে পরিণত করেন প্যানিয়াংরা, জন নিম্বু ও টেন্ডাই চাতারাকে।

অস্ট্রেলিয়া: অজি পেসার ড্যামিয়েন ফ্লেমিং ১৯৯৪-৯৫ সালে সাদা পোশাকে হ্যাটট্রিক করেন। টেস্ট ম্যাচ চলাকালে তিনি পাকিস্তানের তিন ব্যাটসম্যানকে একে একে শিকারে পরিণত করেন। পাক ব্যাটসম্যান আমির মালিক, ইনজমামা উল হক ও সলিম মালিককে সাজঘরে পাঠিয়ে অভিষেককে রঙিন করেন তুলেন এই অজি পেসার।

শ্রীলঙ্কা:: শ্রীলঙ্কার দু’জন ক্রিকেটার অভিষেককে রাঙিয়েছেন হ্যাটট্রিকের গৌরবে। শাহান মধুশঙ্কা ২০১৮ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে আন্তর্জাতিক অভিষেক ম্যাচেই হ্যাটট্রিক করেন। তিনি অবশ্য পরপর তিন বলে তিনটি উইকেট শিকার করেছেন দু’টি ওভারে। আগের ওভারের পঞ্চম এবং ষষ্ট বলে ও পরের ওভারের প্রথম বলে উইকেট শিকার করেন। একে একে ফেরত সাজঘরে ফেরত পাঠান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মাশরাফী বিন মোর্ত্তজা ও রুবেল হোসেন। লঙ্কানদের হয়ে অভিষেক ম্যাচে হ্যাটট্রিককারী আরেক বোলার হলেন ভানিদু হাসরাঙ্গা। এক দিবসীয় ক্রিকেটে ২০১৭ সালে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিনি হ্যাটট্রিক করেন।

সাউথ আফ্রিকা:: প্রোটিয়া পেসার কাগিসো রাবাদাও বাংলাদেশের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেন। ২০১৫ সালে এক দিনের ক্রিকেটে তিনি টাইগারদের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেন। অভিষেক ম্যাচের চতুর্থ ওভারের শেষ একে একে তামিম ইকবাল, লিটন দাস এবং মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে তিনি শিকারে পরিণত করেন।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/০০