রংপুরকে প্লে-অফে তুলে ঢাকা, খুলনা, চট্টগ্রামকে বিদায় করলেন সোহান

0
175

নিজস্ব প্রতিবেদক:: রংপুর রাইডার্সের এক জয় বিপিএল থেকে বিদায় নিলো তিন দল। তামিমদের খুলনা টাইগার্স, নাসির-তাসকিনদের ঢাকা ডমিনেটর্স ও আফিফদের চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের বিপিএল মিশন শেষ হয়ে গেলো। বাকী ম্যাচগুলো তাদের জন্য হয়ে গেলো নিয়ম রক্ষার। অধিনায়ক সোহানের ব্যাটে রাইডার্সরা ২ উইকেটে হারিয়েছে ডমিনেটর্সদের।

মিরপুরের হোম অব ক্রিকেটে আগে ব্যাট করা নাসির হোসের ঢাকা ১৩০ রান তুলেছিলো। জবাবে খেলতে নামা রংপুর অধিনায়ক সোহানের ফিফটিতে ৮ উইকেট হারিয়ে পৌঁছে যায় প্লে-অফে। সিলেট, বরিশাল ও কুমিল্লার সঙ্গী হলো রংপুর।

টস হেরে ব্যাট করতে নামা ঢাকা আরিফুল ও মামুনের ছোট ছোট ইনিংসে ৮ উইকেটে ১৩০ রান তুলতে সমর্থ হয়। রংপুরের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে বড় সংগ্রহ পায়নি নাসিরের দল। ইনিংস সর্বোচ্চ ২৯ রান আসে আরিফুল হকের ব্যাট থেকে। দুই চার ও এক ছয়ে ২৬ বলে সাজান নিজের ইনিংসটি। বিপিএলে প্রথম ম্যাচ খেলতে নামা আব্দুল্লাহ আল মামুন এক চার ও এক ছয়ে ২৭ বলে ২৩ রান করেন। ১৮ রান করেন অ্যালেক্স। ১৫ রানে অপরাজিত থাকেন আমির হামজা।

রংপুরের হয়ে ওমরজাই ২টি, মেহদী হাসান, হারিস রউফ, হাসান মাহমুদ ও মোহাম্মদ নেওয়াজরা ১টি করে উইকেট লাভ করেন।

১৩১ রানের টার্গেটে খেলতে নামা রংপুর রাইডার্স অধিনায়ক সোহানের ঝড়ো ফিফটিতে ৩ বল হাতে রেখে ৮ উইকেট হারিয়ে জয় নিশ্চিত করে ফেলে। জয়ের লক্ষ্য খেলতে নামা দলটি শুন্য রানেই ওপেনার মোহাম্মদ নাঈমকে হারিয়ে শুরু করে। তবে আরেক ওপেনার রনি তালুকদার ৩৪ রান করেন। ৩৯ বলের ইনিংসে তিনটি চার হাঁকিয়েছেন তিনি।

অধিনায়ক সোহান ৬৩ রানের ঝলমলে এক ইনিংস খেলে জয়ের পথ সহজ করে দেন। ৩৩ বলের ঝড়ো ইনিংসে সাতটি চার ও তিনটি ছক্কা হাঁকিয়েছেন তিনি। এক অঙ্কের কোটা পেরুতে পারেননি অন্য কোনো ব্যাটার। ৭ রান করে ওমরজাই ও হারিস রউফরা অপরাজিত থাকেন।

ঢাকার হয়ে নাসির ৪টি ও শরিফুল ৩টি করে উইকেট লাভ করেন।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/ডেস্ক/০০

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here