সিলেটের ল্যাব ভুল করোনা রিপোর্ট দিলো- দাবি দক্ষিণ আফ্রিকা বোর্ডের

স্পোর্টস ডেস্কঃ সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে চলছিল বাংলাদেশ ইমার্জিং নারী দল ও দক্ষিণ আফ্রিকা ইমার্জিং নারী দলের মধ্যকার পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ। যেখানে করোনার প্রকোপ বেড়ে যাওয়ায় সিরিজের পঞ্চম ও শেষ ম্যাচটি না খেলেই দেশে চলে যায় প্রোটিয়া নারী দলটি। সিলেট থেকে প্রথমে ঢাকা যায় দলটি। যাওয়ার আগে বাধ্যতামূলক করোনা টেস্ট করাতে হয় তাদের।

সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল তাদের করোনার নমুনা সংগ্রহ করেছিল। এরপর দেখা যায় ৫ আফ্রিকান নারী ক্রিকেটারের করোনা পজেটিভ। বাধ্য হয়ে তারা আইসোলেশনে যেতে হয় ঢাকার হোটেলে। আর বাকিরা উড়াল দেয় দেশের পথে। এরপর মঙ্গলবার আরেকদফা করানো হয়ে সেই আটকে যাওয়া ক্রিকেটারদের করোনা টেস্ট। যেখানে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে তাদের রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। ফলে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তারা দেশে ফিরে গেছেন। দক্ষিণ আফ্রিকা বোর্ডের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, আগের দিনের টেস্টের ফলাফল ভুল ছিল।

গত ২৮ মার্চ বাংলাদেশে পা রাখে প্রোটিয়া মেয়েরা। মঙ্গলবার শেষ ম্যাচটি খেলে বুধবার দেশের পথে রওনা হওয়ার কথা ছিল তাদের। কিন্তু বুধবার থেকে লকডাউনের ঘোষণা আসায় দুই দেশের বোর্ডের সিদ্ধান্তে বাতিল হয় শেষ ম্যাচ।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/ডেস্ক/১১০