৩২ ফাউলের ম্যাচে জোড়া লাল কার্ড, ড্র’তে নিষ্পত্তি ব্রাজিল-ইকুয়েডর লড়াই

স্পোর্টস ডেস্কঃ ইকুয়েডরের রাজধানী কিটোয় বুহস্পতিবার রাতে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচে মাঠে নামে স্বাগতিক ইকুয়েডর ও ব্রাজিল। ঘটনাবহুল ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়। ৩২ ফাউলের লড়াইটিতে কাসেমিরোর গোলে ব্রাজিল এগিয়ে যাওয়ার পর সমতা টানেন ফেলিক্স তরেস। লাল কার্ড দেখেছেন দু’দলের দুই ফুটবলার। দাপট ছিল ‘ভিএআর’-এ সিদ্ধান্ত বদলেরও।

ম্যাচের শুরুতেই এগিয়ে যায় ব্রাজিল। ক্যাসেমিরোর গোলে পিছিয়ে পড়ে মেজাজ হারিয়ে খানিক পরই লালকার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন ইকুয়েডরের গোলরক্ষক আলেক্সান্ডার ডমিঙ্গোজ। পাঁচ মিনিট পর লালকার্ড দেখেন ব্রাজিলের এমারসনও। একটু পর আবার অল্পের জন্য বেঁচে যান ব্রাজিল গোলরক্ষক অ্যালিসন বেকার। শুরুতে লালকাকার্ড দেখেও পরে ভিএআর রক্ষা পান তিনি। প্রথমার্ধে এমন কার্ডের ছড়াছড়ি ম্যাচটি শেষ পর্যন্ত ড্র হয়েছে।

চোটের কারণে নেইমারকে ছাড়া খেলতে নামা ব্রাজিলকে ষষ্ঠ মিনিটে এগিয়ে দেন রিয়াল মাদ্রিদ মিডফিল্ডার ক্যাসেমিরো। ফিলিপে কৌতিনিয়োর কর্নার ইকুয়েডরের রক্ষণভাগ ক্লিয়ার করতে ব্যর্থ হলে কোনোমতে এক টোকায় বাকি কাজ সারেন ক্যাসেমিরো। ম্যাচের ১৫তম মিনিটে লালকার্ড দেখে মাঠ ছাড়ে ইকুয়েডরে গোলরক্ষক। ৫ মিনিট পর দশ জনের দলে পরিণত হয় ব্রাজিলও। ফাউল করে লালকার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন এমারসন।

ম্যাচের ৫৭তম মিনিটে পেনাল্টি পেয়েছিল ইকুয়েডর। তবে ভিএআরে দেখে সিদ্ধান্ত পাল্টান রেফারি। ম্যাচের ৭৫তম মিনিটে সমতায় ফিরে ইকুয়েডর। কর্নার থেকে প্লাটার পাসে দুর্দান্ত এক গোলে স্বাগতিকদের উল্লাসে ভাসান ফেলিক্স টোরেস। নির্ধারিত সময়ের খেলা শেষ হয় সমতায়। ম্যাচের যোগ করা সময়ে ফাউলের কারণে ব্রাজিল গোলরক্ষককে লাল কার্ড ও পেনাল্টি দেন রেফারি। এবার এই সিদ্ধান্তও বদলান ভিএআর দেখে।

এই ড্রয়ে বিশ্বকাপ বাছাইয়ে লাতিন আমেরিকা অঞ্চলে ১৪ ম্যাচে ১১ জয় ও ৩ ড্রয়ে ৩৬ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে ব্রাজিল। সমান ম্যাচে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে ইকুয়েডর। এক ম্যাচ কম খেলে দুইয়ে থাকা আর্জেন্টিনার পয়েন্ট ২৯।

এসএনপিস্পোর্টসটোয়েন্টিফোরডটকম/নিপ্র/ডেস্ক/১১০